পিন্টারেস্ট থেকে কীভাবে আপনার ব্লগে ট্রাফিক বাড়াবেন? সাথে আরও কিছু টিপস

সোশাল নেটওয়ার্ক গুলোর মধ্যে প্রথম স্থানে রয়েছে ফেইসবুক। জনপ্রিয়তার দিক দিয়ে এর ধারে কাছেও আর কেউ পৌঁছুতে পারছে না, পারবে বলেও মনে হয় না। তবে দ্বিতীয় স্থানটি দখল করার জন্যে মারাত্মক প্রতিযোগিতা চলছে গুগল প্লাস, টুইটার, পিন্টারেস্ট এর মধ্যে।

পিন্টারেস্টের জনপ্রিয়তা ও ব্যবহারকারী দিন দিন বেড়েই চলেছে। পুরো সাইটকেই একটি ই-কমার্স সাইট হিসেবেও ধরা যেতে পারে। কারণ বিভিন্ন ব্র্যান্ডগুলো যেমনি তাদের পিন্টারেস্ট অ্যাকাউন্ট থেকে বিভিন্ন পণ্যের ছবি প্রকাশ করতে পারছে, তেমনি গ্রাহকরাও তাদের পছন্দের পণ্যগুলোকে “রিপিন” করে রাখছেন। আর এ কথা বলার অপেক্ষা রাখে না যে, পিন্টারেস্ট ঠিক তাদের কাছেই সবচেয়ে বেশি জনপ্রিয় যাদের “শপিং-এ কোনো জুড়ি নেই!”

সুতরাং পিন্টারেস্টের মাধ্যমে আপনি আপনার পন্যের প্রচার করে ব্যাবসার উন্নতি করতে পারেন খুব সহজভাবে।

এর আগে ব্যবসার প্রচারের কাজে আরেক জনপ্রিয় সোশ্যাল মিডিয়া সাইট, লিংকডিনের উপর একটি পোস্ট করেছিলাম। যারা সেটি মিস করেছেন, তাদের জন্য লিংক দিচ্ছি। ঘুরে আসতে পারেন।

লিঙ্কডইন এ আপনার প্রোফাইলটি ঠিক আছে তো?

Pinterest

 

পিন্টারেস্ট থেকে ভিসিটর আনতে হলে যা যা করতে হবে, তার বর্ননা দেয়া হল ধারাবাহিকভাবে,

পিন্টারেস্টে আপনার একাউন্ট আছে তো?

পিন্টারেস্টে আপনার একাউন্ট আছে তো? যদি না থেকে থাকে আজ, এক্ষুনি আপনার অথবা আপনার ব্লগের নামানুসারে একটি একাউন্ট খুলে ফেলুন।

‘About’ সেকশনে আপানার সম্পর্কে এবং আপনার ব্লগ এর ব্যাপারে সংক্ষিপ্ত বর্ননা লিখে দিন যাতে করে অন্যরা আপনার সম্পর্কে ধারনা নিয়ে আপনার ব্লগ ভিজিট করতে আসে। তবে স্পাম করবেন না, লেখা গুলো যেন আপনার ব্যাক্তিত্বের পরিচয় বহন করে।

তারপর সেই প্রোফাইল লিঙ্ক অবশ্যই আপনার অয়েব সাইট বা ব্লগে এ লিঙ্কড করে দেবেন।

কীভাবে পিন্টারেস্ট লিঙ্কটি আপানার ব্লগের সাথে কানেক্ট করবেন

Step 1: লগ ইন করুন

Step 2: “Settings” অপশনে ক্লিক করুন

for settings

Step 3: এর পর Account Basics আসবে, সেখান থেক ক্রল ডাউন করে ‘web site’ এর ঘরে আপনার ওয়েব সাইটের লিঙ্ক টি বসিয়ে দিয়ে সেইভ করুন।

Step 4: এবার আপনার ওয়েবসাইটের লিঙ্ক টি ভেরিফাই করে নিন। ভেরিফাইড হলে আপানার প্রোফাইলে শো করা লিংকের পাশে tick মার্ক শো করবে। আর এতে করে আপানার সাইটে দ্বিগুন ভিসিটর যাবে, কারন ‘tick’ মার্ক থাকা মানেই আপনার এবং আপনার ব্লগের প্রতি ভিজিটর দের বিশ্বস্ততার সৃষ্টি হওা, যা আপানার ব্যবসার মূলধন বলা যায়।

ভেরিফাইড ওয়েবসাইট হলে আর একটি সুবিধা আপনি পাবেন, তা হল Pinterest এর free analytics tool টি আপান্র জন্যে আনলক করে দেয়া হবে। এই free analytics tool এর মাধ্যমে আপনি জানতে পারবেন প্রতিদিন কী পরিমান ভিজিটর আপনার সাইট ভিজিট করছে, বা কিভাবে আপনি আর ভিজিটর বাড়াতে পারবেন।

Step 5: আপনার প্রোফাইল পিক এর নিচে একটি গ্লোব আইকন দেখতে পাবেন, এই আইকন্টি এবার আপান্র ব্লগ বা ওয়েব সাইটের লিঙ্ক টি এড করে দিন।

link 4 pin

ওয়েবসাইটে পিন্টারেস্টের ফলো বাটন অবশ্যই এড করতে হবেঃ

button pin

আপনার ওয়েবসাইটে পিন্টারেস্টের ফলো বাটন টি থাকলে, সেটা ভিজিটর দের কে পিন্টারেস্ট এ ড্রাইভ করে, যেখানে থাকবে আপনার প্রোডাক্টের আকর্ষনীওয় সব ছবি এবং সেগুলোর বর্ননা। এর ফলে আপনি খুব সহজেই আপনার টার্গেটেড ক্লায়েন্টকে আপনার কাছে নিয়ে আসতে পারছেন, যা কিনা অনেক লিঙ্ক বিল্ডিং করেও খুব কঠিন হয়ে পড়ে। জরিপে দেখা গেছে যে গুগল প্লাস, ইউটিউব এবং এই বুত্তনের মাধ্যমে আপনার ভিগিটররা আপনার ফলোয়ারে কনভাড়ড়ট হয়ে যায়, তাই এর এই বাটন্টি দিতে ভুল করবেন না।

সোশাল নেটওার্কের সাথে যুক্ত থাকুনঃ

twiter

আপনার পিন্টারেস্ট একাউন্টটি অন্যান্য Social Networks যেমন ফেইসবুক একাউন্ট ও টুইটার একাউন্টের সাথে লিঙ্কড করে দিন। এর ফলে আপনার ফেইসবুক ফ্রন্ডস এবং টুইটার ফলোয়াররা আপনার পিন্টারেস্টের সাথে কানেক্টেড থাকতে পারবে। কারন যখনই আপনি কিছু পিন করবেন, তার নোটিফিকেশন চলে যাবে ফেইসবুক ও টুইটার ফলোয়ারদের কাছে।

অন্যান্য সাইটগুলো থেকে ফ্রেন্ডদের খুঁজে বের করুনঃ

find friend

অন্যান্য সাইটে আপনার যে সব ফ্রেন্ড পিন্টারেস্টে আছে, তাদের কে খুঁজে বের করুন, ফলো করুন, তারাও আপনাকে ফলো করবে। আর এভাবেই আপনার ভিসিটর অনেক বেড়ে যাবে।

পিনেবেল(Pinable) টেক্সট ইমেজ ক্রিয়েট করুনঃ

আপানার ওয়েবসাইট বা পণ্যের প্রচারের জন্যে পন্যের ইমেজ এ টেক্সট ক্রিয়েট করুন। কারন পিন্টারেস্ট মুলত ইমেজ-বেসড সাইট। এখানে ইমেজের মাধ্যমেই সবাই তাদের পন্যের প্রচার করে থাকেন। গ্রাহকরাও তাদের চাহিদা অনুযায়ী পণ্য গুলর ইমেজ সার্চ দিয়ে পিন বা রিপিন করে রাখে, এবং সেই পন্যের ভিত্তিতেই ওয়েবসাইট ভিজিট করে থাকেন। সুতরাং বুঝতেই পারছেন , যত আকর্ষণীয় ভাবে আপনি ইমেজের মাধ্যমে পণ্যের প্রমোট করতে পারবেন, ততই আপনার ব্যবসার সফলতা বয়ে আনবে।

আপনার মূল কন্টেন্ট গুলো ইমেজ আকারে পিন করুন

কন্টেন্টের মূল কথা গুলো বা আপানি কী নিয়ে গ্রাহকদের কাছে এসেছে, তা টেক্সট করে ইমেজ তৈরি করুন এবং পিন্টারেস্টে পিন করে রাখুন।

পিন এর ডেসক্রিপশনে অবশ্যই সাইট লিঙ্ক দেবেন

পিন্টারেস্ট অটোমেটিক্যালি আপানার পিন এ ওয়েবসাইটের লিঙ্ক বসাবে, কিন্তু ভিজিটর রা এসে আগে আপানার পিন এ ক্লিক করবে, সে কারনেই পিনের মধেই আপানার ওয়েবসাটি এর লিঙ্কটি দিয়ে দেবেন ভিজিটরদের কে আকৃষ্ট করার জন্য । তাঁরা পিন এর মধ্যে চোখ বুলিয়েই দেখতে পাবে আপান্র পন্যের বর্ননা, ছবি এবং ওয়েব সাইতের লিঙ্ক।

বোর্ড,ক্যাটাগরি ক্রিয়েট করুনঃ

pinterest board

আপানার ইমেজগুলো অবশ্যই বোর্ড এর ভেতরে রাখবেন, আর বোর্ড গুলোও সাজাবেন ক্যাটাগরি অনুযায়ী। এর ফলে আপানার পিন গুলো ফলোয়ারদের ফিডস এ শো করবে, তাই-ই নয়, কানেক্টেড সেইম ক্যাটাগরির বোর্ড গুলোর মধ্যেও শো করবে।

category

 

জনপ্রিয় বোর্ড গুলোর তে contribute করুনঃ

পিন্টারেস্টের পপুলার বোর্ড গুলো হচ্ছে ট্রাফিক জোগাড় করার অন্যতম উপায়। কারন এই বোর্ডের প্রচুর ফলোয়ার থাকে। তাই কিছুটা সময় ব্যয় করে খুজে বের করুন সেই বোর্ড গুলো, বের করুন যারা সেই বোর্ড গুলোর অওনার। তাদের কে অনুরোধ করুন তাদের বোর্ডে আপনার পিন contribute করার জন্য। যুক্ত হতে পারলে তাদের বোর্ডে আপানার কন্টেন্ট, এবং অন্যান্য তথ্য সমৃদ্ধ ইমেজ শেয়ার করুন। এতে আপনার অয়েবসাইটে প্রচুর ট্রাফিক যাবে।

আরো একটি সুবিধা হল এ ফলে যারা আপানার ফলোয়ার না, তাদের ফিডস এও আপানার বোর্ড গুলো দেখা যাবে, যখন তাঁরা ক্যাটাগরি অনুযায়ী ইমেজ সার্চ দেবে।

ব্লগ বোর্ড তৈরি করুনঃ

বিশেষ করে আপান্র ব্লগের আর্টিকেল গুলোর জন্যে বোর্ড তৈরি করুন, যাতে করে আপনার ফলোয়ার রা সহজেই আপান্র ব্লগের সন্ধান পায়। ব্লগের title এর সাথে যেন পিন্টারেস্ট বোর্ডের title যেন একই থাকে। যেমন আপনার ব্লগের নাম যদি হয় “All Beauty Products” , তাহলে পিন্টারেস্ট বোর্ডের নামও দেবেন “All Beauty Products”।

যখন একটি ব্লগ পোস্ট লিখবেন, তা অবশ্যই ব্লগ বোর্ডে এ পিন করে দেবেন। তবে সম্পুর্ণ ব্লগ তো আর দেয়া যাবে না, যা দিতে হবে, তা হল,

সেই আর্টিকেলের সারমর্ম, বা কিছু কোটেশন।

একটি ইমেজ, যা আপনার পোস্ট কে রিপ্রেজেন্ট করবে।

ব্লগ আর্টিকেলের লিঙ্ক।

লাইফ স্টাইল সম্পর্কিত বোর্ড ক্রিয়েট করুনঃ

আপনার বিজনেস রিলেটেড বোর্ড গুলো করা হয়ে গেলে এবার লাইফ স্টাইল নিয়ে কিছু বোর্ড তৈরি করুন, যেখানে নিত্যব্যবহার্য জিনিস পত্র, খাবার-দাবার নিয়ে, জীবন ঘনিষ্ঠ বিষয় নিয়ে লেখা এবং ইমেজ থাকবে, যা ইমোশোনালি ভিজিটরদের কে আকৃষ্ট করবে।

ডিনার এর আইটেম নিয়ে, বা কোন রেসিপি নিয়ে বোর্ড ক্রিয়েট করতে পারেন।

dinner

 

এনগেইজড থাকুনঃ

সোশাল মার্কেটার হিসেবে অন্যান্য সাইট গুলোর মত পিন্টারেস্টের সাথেও আপনাকে Engaged থাকতে হবে নিয়মিত। আপনি যত আপানার বোর্ডের ফলোয়ার দের সাথে কানেক্টেড থাকতে পারবেন, তাঁরা ততই আপনার সাথে যুক্ত থাকবে।

এর জন্যে কী করতে হবে?

আসল, প্রাসঙ্গিক এবং উন্নত মানের কন্টেন্ট পিন করুন,

ফলোয়ারদের ফি্ডসে আপানার পিন শো করানোর জন্য রেগুলার পিন করুন, তবে অবশ্যই ধারাবাহিকতা বজায় রেখে।

যারা আপনাকে ফলো করবে, আপনিও অবশ্যই তাদের কে ফলো করবেন,

ভালো ও উন্নতমানের পিন সম্পর্কে ধারনা পাবার জন্যে ফলোয়ার বা অন্যদের বোর্ড গুলো চেক করুন নিয়মিত।

ফলোয়ারদের পিন গুলো রিপিন করুন, লাইক দিন এবং কমেন্ট করুন। এতে করে ফলোয়ারদের সাথে আপান্র সুসম্পর্ক সৃষ্টি হবে।

আপনার ব্লগে “Pin it” বাটন যুক্ত করুনঃ

আপনার ব্লগের আর্টিকেল বা ইমেজে আবশ্যই “Pin it” বাটনটি যুক্ত করবেন, তাহলে ভিসিটররা তাদের পছন্দ হওয়া পোস্ট গুলো পিন করে নিতে পারবে।

ফলোয়ারদের খুশি রাখুনঃ

শুধু ফলোয়ার বাড়ালেই হবে না, তাদের কে ধরে রাখতে হবে, খুশি রাখতে হবে। তা নাহলে হয়তোবা এসেও বিরক্ত হয়ে আপনাকে আনফলো করতে পারে। একই বোর্ড থেকে সব পিন একবারেই শেয়ার করবে না, এতে ফলোয়ারদের ফিডস কেবল আপনার পিন দিয়েই ভরে যাবে, যা বিরক্তির কারন হতে পারে। তবে ভিন্ন বোর্ড থেকে ভিন্ন ভিন্ন পিন শেয়ার করলে সেটা মোটামূটি মেনে নেয়া যায়।

ফলোয়ার হারানোর একটি অন্যতম কারন হল বোর্ডে অপ্রাসঙ্গিক পিন বা পোস্ট যুক্ত করা। এটা মারাত্মক একটি ভুল।

সুতরাং আমরা বুঝতে পারলাম যে পিন্টারেস্ট কেবলমাত্র ইমেজ এর জন্যেই জনপ্রিয় না, এর আসল আকর্ষণ হল খুব সহজে এর মাধ্যমে আমরা আমাদের টার্গেটেড ইউজারদের কাছে পৌঁছুতে পারি। আর এই কারনেই দিন দিন এটি এতো জনপ্রিয় হয়ে উঠেছে।

ধন্যবাদ সবাইকে।

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out /  Change )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out /  Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out /  Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out /  Change )

Connecting to %s